সর্বোচ্চ সম্মান এবং সুমহান মর্যাদা!

ভূমিকা

ইসলাম নারীকে কি কি সুমহান অধিকার দিয়েছে, তার বয়ান মাঝে মাঝেই বিভিন্ন ইসলামী চিন্তাবিদ এবং ওয়াজকারীদের মুখে শুনে থাকি। সেখানে বলা হয়, আইয়্যামে জাহেলিয়াতের যুগে নারীর বিন্দুমাত্র কোন অধিকার ছিল না, নারী শিশুকে জন্মানো মাত্রই জীবন্ত মাটিতে পুতে ফেলা হতো, বিক্রি করে দেয়া হতো, তাদের সম্পত্তির কোন অধিকার ছিল না, তাদের মানুষ হিসেবেই গন্য করা হতো না ইত্যাদি। এই সব কথা শুনে বড় ভাল লাগে, মনে শান্তি পাই যে ইসলাম নারীকে খুব উঁচু সম্মান দিয়েছে।

কিন্তু একই সাথে আশ্চর্য লাগে, পৃথিবীর ইসলাম প্রধান দেশগুলোতে নারীর এই দুরবস্থা কেন? এর কারণ কি? যেই ধর্মটি নারীকে এত এত সম্মান আর সুমহান মর্যাদা দিয়ে দিলো, সেই ধর্মের মানুষেরাই কেন সব চাইতে বেশি নারী অবমাননার সাথে যুক্ত। ইসলামপন্থী মোল্লারাই কেন নারীর সম্পত্তিতে সমান অধিকারের বিরুদ্ধে সব চাইতে সোচ্চার? মোল্লারাই কেন সবচাইতে বেশি নিজের স্ত্রীকে নির্যাতন করে! এই কদিন আগেও ইসলামী দেশগুলোতে নারীর ভোটাধিকার ছিল না, নারীকে বাইরে বের হতে হলেও তার স্বামীর বা পিতার অনুমতি লাগতো। এর নামই কি ইসলামী মর্যাদা?

এমন হতে পারে যে এখনকার মুসলিমরা আর প্রকৃত ইসলাম পালন করছে না। ছহি ইসলামে নারীকে যেই সম্মান দেয়া হয়েছে, মনে হচ্ছে মুসলিমরা তার থেকে দূরে সরে গেছে। কিন্তু তখন প্রশ্ন জাগে, গোটা বিশ্বে কেউ কি ইসলাম অনুসরণ করছে না? ইসলামী দেশগুলোতে নারীর চরম অমানবিক অবস্থা কিভাবে সম্ভব? আর ছহি ইসলাম যদি কেউ পালন নাই করে থাকে, ব্যবহারিকভাবে অনুপযুক্ত সেই নিয়ম নীতির প্রয়োজনটাই বা কি? যেই আদর্শ প্রয়োগ হবার নয়, তা নিয়ে দিবাস্বপ্ন দেখারই বা দরকার কি?

কিন্তু তারপরেই আমরা প্রকৃত ইসলাম তথা একদম কোরান হাদিস থেকে নারীর মর্যাদা এবং সুমহান অধিকার বিষয়ে যদি একটু দৃষ্টি দেই, তাহলেই পুরোপুরি ভিন্ন ব্যাপার স্যাপার দেখতে পাই। ইসলামপন্থীদের গলা ফাটানো নারীর সুমহান অধিকার ও মর্যাদার ব্যাপারগুলো সম্পর্কে কোরান হাদিস আসলে কি বলে? আইয়্যামে জাহেলিয়াতের যুগে নারীর যেই অবস্থার কথা বর্ণনা করা হয়, সেটাই বা কতটা সত্য? আমরা জানি, প্রতিটি বিজয়ী বাহিনীই নিজেদের শ্রেষ্ঠত্বের ঢোল বাজাবার জন্য আগের আমল সম্পর্কে নানা ধরণের মিথ্যাচার করে। যেমন আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসলে বলে বিএনপির আমলে জনগনের জানমালের কোন নিরাপত্তা ছিল না, সব লুটপাট করা হয়েছে। আবার বিএনপি ক্ষমতায় আসলেও আগের আওয়ামী শাসন সম্পর্কে একই কথা বলে। এগুলো বলে নিজেদের শাসনকে আগের চাইতে ভাল প্রমাণের উদ্দেশ্যে। কিন্তু সচেতন মানুষ মাত্রই জানেন, বিএনপি আওয়ামী দুই আমলেই জনগনের অবস্থা খারাপই থাকে। কেউই জনগনকে সেই সুমহান মর্যাদা দেয় না। ইসলামের ক্ষেত্রেও কি একই ঘটনা ঘটেছে? ইসলাম আইয়্যামে জাহেলিয়াত সম্পর্কে যা বলে, তার কি আদৌ কোন ভিত্তি আছে?

প্রশ্ন হচ্ছে, আইয়্যামে জাহেলিয়াতের যুগে নারী শিশুদের এভাবে জীবন্ত মাটিতে পুতে ফেলা হলে ইসলামের নবী এবং তার সাহাবাগন ১০-১৫ টা করে বিবাহ এবং দাসী রাখার মত পর্যাপ্ত নারী কোথায় পেতেন? সম্পত্তিতে বিন্দুমাত্র অধিকার না থাকলে মুহাম্মদের প্রথম স্ত্রী হযরত খাদিজা, যিনি ছিলেন বিধবা, সম্ভ্রান্ত একজন মহিলা ব্যবসায়ী, তিনি এত বিপুল সম্পদের মালিক কিভাবে হয়েছিলেন? বিধবা হবার পরেই তাকে কেন লোকজন বাজারে নিয়ে বিক্রি করে দিলো না? তিনি সম্পত্তির অধিকার কিভাবে পেয়েছিলেন? ভীষণ গোলমেলে ব্যাপার স্যাপার বটে! খাদিজা যে একজন বিধবা এবং সম্ভ্রান্ত সম্মানিত ব্যবসায়ী ছিলেন, তা ইসলামী সুত্র থেকেই জানা যায়। এখন দুটো ব্যাপার হতে পারে, হয় আইয়্যামে জাহেলিয়াত আমলে নারীর যেই অবস্থানের কথা বলা হয় তা মিথ্যা, অথবা খাদিজা সম্পর্কে যা বলা হয় তা মিথ্যা। দুটো একই সাথে সত্য হতে পারে না। কারণ এইদুটো পরষ্পর বিরোধী বক্তব্য। খাদিজার মত আরো অসংখ্য উদাহরণ দেখানো যেতে পারে, অথচ কন্যা সন্তানকে জীবন্ত পুঁতে ফেলা, বা সম্পত্তিতে অধিকার বঞ্চিত করার বিশেষ কোন উদাহরণই পাওয়া যায় না।

এবারে আসুন দেখি ইসলাম তথা কোরান এবং হাদিস নারীকে আসলেই কি কি সম্মানে ভূষিত করেছে।

■ নারী হচ্ছে ভোগ্যপণ্য

কোরআনে বলা হচ্ছে, নারীকে সৃষ্টি করা হয়েছে পুরুষের জন্য, পুরুষের বিনোদন এবং অবসন্নতা কাটাবার জন্য। এটি নারীর জন্য চরমভাবে অমর্যাদাকর। নারীর সৃষ্টি যদি পুরুষের মনোরঞ্জনের জন্য হয়ে থাকে, তা অবশ্যই নারীকে একটি স্বাধীন এবং স্বাভাবিক সত্ত্বা হিসেবে চিহ্নিত করে না, বরঞ্চ পুরুষের জন্য একটি উপভোগ্য বস্তু হিসেবে নির্দেশ করে, একটি যৌনযন্ত্র হিসেবে চিহ্নিত করে।

তিনিই সে সত্তা যিনি তোমাদিগকে সৃষ্টি করেছেন একটি মাত্র সত্তা থেকে; আর তার থেকেই তৈরী করেছেন তার জোড়া, যাতে তার কাছে স্বস্তি পেতে পারেসুরা ৭ আয়াত ১৮৯

একইসাথে পড়ুন নিচের হাদিসটি।

গ্রন্থের নামঃ সহীহ মুসলিম (ইফাঃ) হাদিস নম্বরঃ [3512] অধ্যায়ঃ ১৮/ দুধপান পাবলিশারঃ ইসলামিক ফাউন্ডেশন পরিচ্ছদঃ ৯. মহিলাদের সম্পর্কে ওসিয়ত ৩৫১২। মুহাম্মাদ ইবনু আবদুল্লাহ ইবন নুমায়র আল-হামদানী (রহঃ) … আবদুল্লাহ ইবনু আমর (রাঃ) সূত্রে বর্ণিত যে, রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেনঃ দুনিয়া উপভোগের উপকরণ (ভোগ্যপণ্য) এবং দুনিয়ার উত্তম উপভোগ্য উপকরণ পুণ্যবতী নারী। হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)

■ নারীই মানুষের সমস্ত দুর্দশার কারণ

গ্রন্থের নামঃ সহীহ বুখারী (তাওহীদ) হাদিস নম্বরঃ [3330] অধ্যায়ঃ ৬০/ আম্বিয়া কিরাম (‘আঃ) পাবলিশারঃ তাওহীদ পাবলিকেশন পরিচ্ছদঃ ৬০/১ক. আল্লাহ তা‘আলার বাণী। ৩৩৩০. আবূ হুরাইরাহ (রাঃ) সূত্রে নাবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম হতে একইভাবে বর্ণিত আছে। অর্থাৎ নাবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন, বনী ইসরাঈল যদি না হত তবে গোশত দুর্গন্ধময় হতো না। আর যদি হাওয়া (আঃ) না হতেন তাহলে কোন নারীই স্বামীর খিয়ানত করত না। * (৫১৮৪, ৫১৮৬) (মুসলিম ১৭/১৯ হাঃ ১৪৭০, আহমাদ ৮০৩৮) (আধুনিক প্রকাশনীঃ ৩০৮৪, ইসলামিক ফাউন্ডেশনঃ ৩০৯২) * বনী ইসরাঈল আল্লাহ তা’আলার নিকট থেকে সালওয়া নামক পাখীর গোশত খাওয়ার জন্য অবারিতভাবে পেত। ‎তা সত্ত্বেও তা জমা করে রাখার ফলে গোশত পচনের সূচনা হয়। আর মাতা হাওয়া নিষিদ্ধ ফল ভক্ষণে আদম ‎‎(‘আঃ)-কে প্রভাবিত করেন। হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)

■ নারী হচ্ছে বাঁকা

গ্রন্থের নামঃ সহীহ মুসলিম (ইফাঃ) হাদিস নম্বরঃ [3513] অধ্যায়ঃ ১৮/ দুধপান পাবলিশারঃ ইসলামিক ফাউন্ডেশন পরিচ্ছদঃ ৯. মহিলাদের সম্পর্কে ওসিয়ত ৩৫১৩। হারামালা ইবনু ইয়াহইয়া (রহঃ) … আবূ হুরায়রা (রাঃ) থেকে বর্ণিত। তিনি বলেন, রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেনঃ নারী পাজরের হাড়ের ন্যায় (বাঁকা)। যখন তুমি তাকে সোজা করতে যাবে তখন তা ভেঙ্গে ফেলবে আর তার মাঝে বক্রতা রেখে দিয়েই তা দিয়ে তুমি উপকার হাসিল করবে। যুহায়র ইবনু হারব ও আবদ ইবনু হুমায়দ (রহঃ) … (যুহরীর ভ্রাতুষ্পুত্র তার চাচা যুহরীর সুত্রে) (উপরোক্ত সনদের ন্যায়) ইবনু শিহাব (রহঃ) সুত্রে অবিকল অনুরূপ রিওয়ায়াত করেছেন। হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)

■ নারী হচ্ছে শস্যক্ষেত্র

তোমাদের স্ত্রীরা হলো তোমাদের জন্য শস্য ক্ষেত্র। তোমরা যেভাবে ইচ্ছা তাদেরকে ব্যবহার কর। সুরা আল বাকারা আয়াত ২২৩

■ নারী অশুভ বা নারীতে অমঙ্গল রয়েছে

পরিচ্ছদঃ ৭৬/৪৩. পশু-পাখি তাড়িয়ে শুভ-অশুভ নির্ণয়। ৫৭৫৩. ইবনু ‘উমার হতে বর্ণিত যে, রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেনঃ ছোঁয়াচে ও শুভ-অশুভ বলতে কিছু নেই। অমঙ্গল তিন বস্তুর মধ্যে স্ত্রীলোক, গৃহ ও পশুতে।[1] [২০৯৯; মুসলিম ৩৯/৩৪, হাঃ ২২২৫, আহমাদ ৪৫৪৪] আধুনিক প্রকাশনী- ৫৩৩৩, ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৫২২৯) [1] কোন কোন স্ত্রীলোক স্বামীর অবাধ্য হয়। আবার কেউ হয় সন্তানহীনা। কোন গৃহে দুষ্ট জ্বিনের উপদ্রব দেখা যা, আবার কোন গৃহ প্রতিবেশীর অত্যাচারের কারণে অশান্তিময় হয়ে উঠে। গৃহে সলাত আদায় ও যিকর-আযকারের মাধ্যমে জ্বিনের অমঙ্গল থেকে রক্ষা পাওয়া সম্ভব। কোন কোন পশু অবাধ্য বেয়াড়া হয়। হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)

Version:1.0 StartHTML:000000201 EndHTML:000049799 StartFragment:000022591 EndFragment:000049715 StartSelection:000022629 EndSelection:000049715 SourceURL:https://www.shongshoy.com/archives/173 সুমহান মর্যাদা এবং সমান অধিকার? {"@context":"https://schema.org","@graph":[{"@type":"Organization","@id":"https://www.shongshoy.com/#organization","name":"Shongshoy.com","url":"https://www.shongshoy.com/","sameAs":["https://www.facebook.com/shongshoydotcom","https://www.youtube.com/channel/UCJd5ouvn640kHsf_GQdH92w","https://twitter.com/iamasifm"],"logo":{"@type":"ImageObject","@id":"https://www.shongshoy.com/#logo","url":"https://www.shongshoy.com/wp-content/uploads/2020/01/shongshoy-new-banner.png","width":430,"height":150,"caption":"Shongshoy.com"},"image":{"@id":"https://www.shongshoy.com/#logo"}},{"@type":"WebSite","@id":"https://www.shongshoy.com/#website","url":"https://www.shongshoy.com/","name":"\u09b8\u0982\u09b6\u09df","description":"\u099c\u09cd\u099e\u09be\u09a8 \u09af\u09c7\u0996\u09be\u09a8\u09c7 \u09b8\u09c0\u09ae\u09be\u09ac\u09a6\u09cd\u09a7,\u09af\u09c1\u0995\u09cd\u09a4\u09bf \u09af\u09c7\u0996\u09be\u09a8\u09c7 \u0986\u09a1\u09bc\u09b7\u09cd\u099f,\u09ae\u09c1\u0995\u09cd\u09a4\u09bf \u09b8\u09c7\u0996\u09be\u09a8\u09c7 \u0985\u09b8\u09ae\u09cd\u09ad\u09ac","publisher":{"@id":"https://www.shongshoy.com/#organization"},"potentialAction":{"@type":"SearchAction","target":"https://www.shongshoy.com/?s={search_term_string}","query-input":"required name=search_term_string"}},{"@type":"ImageObject","@id":"https://www.shongshoy.com/archives/173#primaryimage","url":"https://www.shongshoy.com/wp-content/uploads/2017/01/wife-beating-in-islam.jpg","width":725,"height":466},{"@type":"WebPage","@id":"https://www.shongshoy.com/archives/173#webpage","url":"https://www.shongshoy.com/archives/173","inLanguage":"en-US","name":"\u09b8\u09c1\u09ae\u09b9\u09be\u09a8 \u09ae\u09b0\u09cd\u09af\u09be\u09a6\u09be \u098f\u09ac\u0982 \u09b8\u09ae\u09be\u09a8 \u0985\u09a7\u09bf\u0995\u09be\u09b0?","isPartOf":{"@id":"https://www.shongshoy.com/#website"},"primaryImageOfPage":{"@id":"https://www.shongshoy.com/archives/173#primaryimage"},"datePublished":"2017-01-12T15:34:14+00:00","dateModified":"2020-01-26T00:39:59+00:00","description":"\u0987\u09b8\u09b2\u09be\u09ae \u09a8\u09be\u09b0\u09c0\u0995\u09c7 \u0995\u09bf \u0995\u09bf \u09b8\u09c1\u09ae\u09b9\u09be\u09a8 \u0985\u09a7\u09bf\u0995\u09be\u09b0 \u09a6\u09bf\u09df\u09c7\u099b\u09c7, \u09a4\u09be\u09b0 \u09ac\u09df\u09be\u09a8 \u09ae\u09be\u099d\u09c7 \u09ae\u09be\u099d\u09c7\u0987 \u09ac\u09bf\u09ad\u09bf\u09a8\u09cd\u09a8 \u0987\u09b8\u09b2\u09be\u09ae\u09c0 \u099a\u09bf\u09a8\u09cd\u09a4\u09be\u09ac\u09bf\u09a6 \u098f\u09ac\u0982 \u0993\u09df\u09be\u099c\u0995\u09be\u09b0\u09c0\u09a6\u09c7\u09b0 \u09ae\u09c1\u0996\u09c7 \u09b6\u09c1\u09a8\u09c7 \u09a5\u09be\u0995\u09bf\u0964 \u098f\u0987 \u09b8\u09ac \u0995\u09a5\u09be \u09b6\u09c1\u09a8\u09c7 \u09ac\u09dc \u09ad\u09be\u09b2 \u09b2\u09be\u0997\u09c7"},{"@type":"Article","@id":"https://www.shongshoy.com/archives/173#article","isPartOf":{"@id":"https://www.shongshoy.com/archives/173#webpage"},"author":{"@id":"https://www.shongshoy.com/#/schema/person/ec133f309e1be71972c4ecad5be25fe0"},"headline":"\u09b8\u09b0\u09cd\u09ac\u09cb\u099a\u09cd\u099a \u09b8\u09ae\u09cd\u09ae\u09be\u09a8 \u098f\u09ac\u0982 \u09b8\u09c1\u09ae\u09b9\u09be\u09a8 \u09ae\u09b0\u09cd\u09af\u09be\u09a6\u09be!","datePublished":"2017-01-12T15:34:14+00:00","dateModified":"2020-01-26T00:39:59+00:00","commentCount":"10","mainEntityOfPage":{"@id":"https://www.shongshoy.com/archives/173#webpage"},"publisher":{"@id":"https://www.shongshoy.com/#organization"},"image":{"@id":"https://www.shongshoy.com/archives/173#primaryimage"},"keywords":"\u0987\u09b8\u09b2\u09be\u09ae\u09c7 \u09a8\u09be\u09b0\u09c0,\u09a8\u09be\u09b0\u09c0 \u0985\u09a7\u09bf\u0995\u09be\u09b0,\u09a8\u09be\u09b0\u09c0\u09ac\u09be\u09a6","articleSection":"\u09a8\u09be\u09b0\u09c0\u09ac\u09be\u09a6,\u09b8\u09ae\u09cd\u09aa\u09be\u09a6\u0995\u09c0\u09df"},{"@type":["Person"],"@id":"https://www.shongshoy.com/#/schema/person/ec133f309e1be71972c4ecad5be25fe0","name":"Asif Mohiuddin","sameAs":[]}]} img.wp-smiley,img.emoji{display:inline!important;border:none!important;box-shadow:none!important;height:1em!important;width:1em!important;margin:0 .07em!important;vertical-align:-.1em!important;background:none!important;padding:0!important} div#ez-toc-container p.ez-toc-title{font-size:120%}div#ez-toc-container p.ez-toc-title{font-weight:500}div#ez-toc-container ul li{font-size:95%} html,body,div,span,applet,object,iframe,h1,h2,h3,h4,h5,h6,p,blockquote,pre,a,abbr,acronym,address,big,cite,code,del,dfn,em,img,ins,kbd,q,s,samp,small,strike,strong,sub,sup,tt,var,b,u,i,center,dl,dt,dd,ol,ul,li,fieldset,form,label,legend,table,caption,tbody,tfoot,thead,tr,th,td,article,aside,canvas,details,embed,figure,figcaption,footer,header,hgroup,menu,nav,output,ruby,section,summary,time,mark,audio,video,textarea,input,select{font-family:"Noto Sans Bengali"}#wpadminbar #wp-admin-bar-my-sites a.ab-item,#wpadminbar #wp-admin-bar-site-name a.ab-item #wpadminbar .quicklinks .ab-empty-item,#wpadminbar .quicklinks a,#wpadminbar .shortlink-input{font-family:"Noto Sans Bengali"} body.custom-background{background-color:#aaa} .colormag-button,blockquote,button,input[type="reset"],input[type="button"],input[type="submit"],#masthead.colormag-header-clean #site-navigation.main-small-navigation .menu-toggle{background-color:#08a02e}#site-title a,.next a:hover,.previous a:hover,.social-links i.fa:hover,a,#masthead.colormag-header-clean .social-links li:hover i.fa,#masthead.colormag-header-classic .social-links li:hover i.fa,#masthead.colormag-header-clean .breaking-news .newsticker a:hover,#masthead.colormag-header-classic .breaking-news .newsticker a:hover,#masthead.colormag-header-classic #site-navigation .fa.search-top:hover,#masthead.colormag-header-classic #site-navigation.main-navigation .random-post a:hover .fa-random,.dark-skin #masthead.colormag-header-classic #site-navigation.main-navigation .home-icon:hover .fa,#masthead .main-small-navigation li:hover>.sub-toggle i,.better-responsive-menu #masthead .main-small-navigation .sub-toggle.active .fa{color:#08a02e}.fa.search-top:hover,#masthead.colormag-header-classic #site-navigation.main-small-navigation .menu-toggle,.main-navigation ul li.focus>a,#masthead.colormag-header-classic .main-navigation ul ul.sub-menu li.focus>a{background-color:#08a02e}#site-navigation{border-top:4px solid #08a02e}.home-icon.front_page_on,.main-navigation a:hover,.main-navigation ul li ul li a:hover,.main-navigation ul li ul li:hover>a,.main-navigation ul li.current-menu-ancestor>a,.main-navigation ul li.current-menu-item ul li a:hover,.main-navigation ul li.current-menu-item>a,.main-navigation ul li.current_page_ancestor>a,.main-navigation ul li.current_page_item>a,.main-navigation ul li:hover>a,.main-small-navigation li a:hover,.site-header .menu-toggle:hover,#masthead.colormag-header-classic .main-navigation ul ul.sub-menu li:hover>a,#masthead.colormag-header-classic .main-navigation ul ul.sub-menu li.current-menu-ancestor>a,#masthead.colormag-header-classic .main-navigation ul ul.sub-menu li.current-menu-item>a,#masthead .main-small-navigation li:hover>a,#masthead .main-small-navigation li.current-page-ancestor>a,#masthead .main-small-navigation li.current-menu-ancestor>a,#masthead .main-small-navigation li.current-page-item>a,#masthead .main-small-navigation li.current-menu-item>a{background-color:#08a02e}#masthead.colormag-header-classic .main-navigation .home-icon a:hover .fa{color:#08a02e}.main-small-navigation .current-menu-item>a,.main-small-navigation .current_page_item>a{background:#08a02e}#masthead.colormag-header-classic .main-navigation ul ul.sub-menu li:hover,#masthead.colormag-header-classic .main-navigation ul ul.sub-menu li.current-menu-ancestor,#masthead.colormag-header-classic .main-navigation ul ul.sub-menu li.current-menu-item,#masthead.colormag-header-classic #site-navigation .menu-toggle,#masthead.colormag-header-classic #site-navigation .menu-toggle:hover,#masthead.colormag-header-classic .main-navigation ul>li:hover>a,#masthead.colormag-header-classic .main-navigation ul>li.current-menu-item>a,#masthead.colormag-header-classic .main-navigation ul>li.current-menu-ancestor>a,#masthead.colormag-header-classic .main-navigation ul li.focus>a{border-color:#08a02e}.promo-button-area a:hover{border:2px solid #08a02e;background-color:#08a02e}#content .wp-pagenavi .current,#content .wp-pagenavi a:hover,.format-link .entry-content a,.pagination span{background-color:#08a02e}.pagination a span:hover{color:#08a02e;border-color:#08a02e}#content .comments-area a.comment-edit-link:hover,#content .comments-area a.comment-permalink:hover,#content .comments-area article header cite a:hover,.comments-area .comment-author-link a:hover{color:#08a02e}.comments-area .comment-author-link span{background-color:#08a02e}.comment .comment-reply-link:hover,.nav-next a,.nav-previous a{color:#08a02e}#secondary .widget-title{border-bottom:2px solid #08a02e}#secondary .widget-title span{background-color:#08a02e}.footer-widgets-area .widget-title{border-bottom:2px solid #08a02e}.footer-widgets-area .widget-title span,.colormag-footer--classic .footer-widgets-area .widget-title span::before{background-color:#08a02e}.footer-widgets-area a:hover{color:#08a02e}.advertisement_above_footer .widget-title{border-bottom:2px solid #08a02e}.advertisement_above_footer .widget-title span{background-color:#08a02e}a#scroll-up i{color:#08a02e}.page-header .page-title{border-bottom:2px solid #08a02e}#content .post .article-content .above-entry-meta .cat-links a,.page-header .page-title span{background-color:#08a02e}#content .post .article-content .entry-title a:hover,.entry-meta .byline i,.entry-meta .cat-links i,.entry-meta a,.post .entry-title a:hover,.search .entry-title a:hover{color:#08a02e}.entry-meta .post-format i{background-color:#08a02e}.entry-meta .comments-link a:hover,.entry-meta .edit-link a:hover,.entry-meta .posted-on a:hover,.entry-meta .tag-links a:hover,.single #content .tags a:hover{color:#08a02e}.more-link,.no-post-thumbnail{background-color:#08a02e}.post-box .entry-meta .cat-links a:hover,.post-box .entry-meta .posted-on a:hover,.post.post-box .entry-title a:hover{color:#08a02e}.widget_featured_slider .slide-content .above-entry-meta .cat-links a{background-color:#08a02e}.widget_featured_slider .slide-content .below-entry-meta .byline a:hover,.widget_featured_slider .slide-content .below-entry-meta .comments a:hover,.widget_featured_slider .slide-content .below-entry-meta .posted-on a:hover,.widget_featured_slider .slide-content .entry-title a:hover{color:#08a02e}.widget_highlighted_posts .article-content .above-entry-meta .cat-links a{background-color:#08a02e}.byline a:hover,.comments a:hover,.edit-link a:hover,.posted-on a:hover,.tag-links a:hover,.widget_highlighted_posts .article-content .below-entry-meta .byline a:hover,.widget_highlighted_posts .article-content .below-entry-meta .comments a:hover,.widget_highlighted_posts .article-content .below-entry-meta .posted-on a:hover,.widget_highlighted_posts .article-content .entry-title a:hover{color:#08a02e}.widget_featured_posts .article-content .above-entry-meta .cat-links a{background-color:#08a02e}.widget_featured_posts .article-content .entry-title a:hover{color:#08a02e}.widget_featured_posts .widget-title{border-bottom:2px solid #08a02e}.widget_featured_posts .widget-title span{background-color:#08a02e}.related-posts-main-title .fa,.single-related-posts .article-content .entry-title a:hover{color:#08a02e}.widget_slider_area .widget-title,.widget_beside_slider .widget-title{border-bottom:2px solid #08a02e}.widget_slider_area .widget-title span,.widget_beside_slider .widget-title span{background-color:#08a02e}@media (max-width:768px){.better-responsive-menu .sub-toggle{background-color:#008210}} blockquote{background-color:#d3d3d3;color:#222}blockquote p:before{color:#222}.slider-featured-image a img{width:725px;height:350px} .fluid-width-video-wrapper{width:100%;position:relative;padding:0;}.fluid-width-video-wrapper iframe,.fluid-width-video-wrapper object,.fluid-width-video-wrapper embed {position:absolute;top:0;left:0;width:100%;height:100%;} .fb_hidden{position:absolute;top:-10000px;z-index:10001}.fb_reposition{overflow:hidden;position:relative}.fb_invisible{display:none}.fb_reset{background:none;border:0;border-spacing:0;color:#000;cursor:auto;direction:ltr;font-family:"lucida grande", tahoma, verdana, arial, sans-serif;font-size:11px;font-style:normal;font-variant:normal;font-weight:normal;letter-spacing:normal;line-height:1;margin:0;overflow:visible;padding:0;text-align:left;text-decoration:none;text-indent:0;text-shadow:none;text-transform:none;visibility:visible;white-space:normal;word-spacing:normal}.fb_reset>div{overflow:hidden}@keyframes fb_transform{from{opacity:0;transform:scale(.95)}to{opacity:1;transform:scale(1)}}.fb_animate{animation:fb_transform .3s forwards} .fb_dialog{background:rgba(82, 82, 82, .7);position:absolute;top:-10000px;z-index:10001}.fb_dialog_advanced{border-radius:8px;padding:10px}.fb_dialog_content{background:#fff;color:#373737}.fb_dialog_close_icon{background:url(https://static.xx.fbcdn.net/rsrc.php/v3/yq/r/IE9JII6Z1Ys.png) no-repeat scroll 0 0 transparent;cursor:pointer;display:block;height:15px;position:absolute;right:18px;top:17px;width:15px}.fb_dialog_mobile .fb_dialog_close_icon{left:5px;right:auto;top:5px}.fb_dialog_padding{background-color:transparent;position:absolute;width:1px;z-index:-1}.fb_dialog_close_icon:hover{background:url(https://static.xx.fbcdn.net/rsrc.php/v3/yq/r/IE9JII6Z1Ys.png) no-repeat scroll 0 -15px transparent}.fb_dialog_close_icon:active{background:url(https://static.xx.fbcdn.net/rsrc.php/v3/yq/r/IE9JII6Z1Ys.png) no-repeat scroll 0 -30px transparent}.fb_dialog_iframe{line-height:0}.fb_dialog_content .dialog_title{background:#6d84b4;border:1px solid #365899;color:#fff;font-size:14px;font-weight:bold;margin:0}.fb_dialog_content .dialog_title>span{background:url(https://static.xx.fbcdn.net/rsrc.php/v3/yd/r/Cou7n-nqK52.gif) no-repeat 5px 50%;float:left;padding:5px 0 7px 26px}body.fb_hidden{height:100%;left:0;margin:0;overflow:visible;position:absolute;top:-10000px;transform:none;width:100%}.fb_dialog.fb_dialog_mobile.loading{background:url(https://static.xx.fbcdn.net/rsrc.php/v3/ya/r/3rhSv5V8j3o.gif) white no-repeat 50% 50%;min-height:100%;min-width:100%;overflow:hidden;position:absolute;top:0;z-index:10001}.fb_dialog.fb_dialog_mobile.loading.centered{background:none;height:auto;min-height:initial;min-width:initial;width:auto}.fb_dialog.fb_dialog_mobile.loading.centered #fb_dialog_loader_spinner{width:100%}.fb_dialog.fb_dialog_mobile.loading.centered .fb_dialog_content{background:none}.loading.centered #fb_dialog_loader_close{clear:both;color:#fff;display:block;font-size:18px;padding-top:20px}#fb-root #fb_dialog_ipad_overlay{background:rgba(0, 0, 0, .4);bottom:0;left:0;min-height:100%;position:absolute;right:0;top:0;width:100%;z-index:10000}#fb-root #fb_dialog_ipad_overlay.hidden{display:none}.fb_dialog.fb_dialog_mobile.loading iframe{visibility:hidden}.fb_dialog_mobile .fb_dialog_iframe{position:sticky;top:0}.fb_dialog_content .dialog_header{background:linear-gradient(from(#738aba), to(#2c4987));border-bottom:1px solid;border-color:#043b87;box-shadow:white 0 1px 1px -1px inset;color:#fff;font:bold 14px Helvetica, sans-serif;text-overflow:ellipsis;text-shadow:rgba(0, 30, 84, .296875) 0 -1px 0;vertical-align:middle;white-space:nowrap}.fb_dialog_content .dialog_header table{height:43px;width:100%}.fb_dialog_content .dialog_header td.header_left{font-size:12px;padding-left:5px;vertical-align:middle;width:60px}.fb_dialog_content .dialog_header td.header_right{font-size:12px;padding-right:5px;vertical-align:middle;width:60px}.fb_dialog_content .touchable_button{background:linear-gradient(from(#4267B2), to(#2a4887));background-clip:padding-box;border:1px solid #29487d;border-radius:3px;display:inline-block;line-height:18px;margin-top:3px;max-width:85px;padding:4px 12px;position:relative}.fb_dialog_content .dialog_header .touchable_button input{background:none;border:none;color:#fff;font:bold 12px Helvetica, sans-serif;margin:2px -12px;padding:2px 6px 3px 6px;text-shadow:rgba(0, 30, 84, .296875) 0 -1px 0}.fb_dialog_content .dialog_header .header_center{color:#fff;font-size:16px;font-weight:bold;line-height:18px;text-align:center;vertical-align:middle}.fb_dialog_content .dialog_content{background:url(https://static.xx.fbcdn.net/rsrc.php/v3/y9/r/jKEcVPZFk-2.gif) no-repeat 50% 50%;border:1px solid #4a4a4a;border-bottom:0;border-top:0;height:150px}.fb_dialog_content .dialog_footer{background:#f5f6f7;border:1px solid #4a4a4a;border-top-color:#ccc;height:40px}#fb_dialog_loader_close{float:left}.fb_dialog.fb_dialog_mobile .fb_dialog_close_button{text-shadow:rgba(0, 30, 84, .296875) 0 -1px 0}.fb_dialog.fb_dialog_mobile .fb_dialog_close_icon{visibility:hidden}#fb_dialog_loader_spinner{animation:rotateSpinner 1.2s linear infinite;background-color:transparent;background-image:url(https://static.xx.fbcdn.net/rsrc.php/v3/yD/r/t-wz8gw1xG1.png);background-position:50% 50%;background-repeat:no-repeat;height:24px;width:24px}@keyframes rotateSpinner{0%{transform:rotate(0deg)}100%{transform:rotate(360deg)}} .fb_iframe_widget{display:inline-block;position:relative}.fb_iframe_widget span{display:inline-block;position:relative;text-align:justify}.fb_iframe_widget iframe{position:absolute}.fb_iframe_widget_fluid_desktop,.fb_iframe_widget_fluid_desktop span,.fb_iframe_widget_fluid_desktop iframe{max-width:100%}.fb_iframe_widget_fluid_desktop iframe{min-width:220px;position:relative}.fb_iframe_widget_lift{z-index:1}.fb_iframe_widget_fluid{display:inline}.fb_iframe_widget_fluid span{width:100%}

গ্রন্থের নামঃ সহীহ মুসলিম (ইফাঃ) হাদিস নম্বরঃ [5613] অধ্যায়ঃ ৪০/ সালাম পাবলিশারঃ ইসলামিক ফাউন্ডেশন পরিচ্ছদঃ ৩৩. কুলক্ষণ, সুলক্ষণ, ফাল ও সম্ভাব্য অপয়া বিষয়বস্তুর বিবরণ ৫৬১৩। আহমদ ইবনু আবদুল্লাহ ইবনু হাকাম (রহঃ) … ইবনু উমার (রাঃ) সূত্রে নাবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম থেকে বর্ণিত যে, তিনি বলেছেনঃ কোন কিছুতে অশুভ কিছু যদি থাকে, তবে তা হবে ঘোড়া, বাড়ি ও নারীতে। হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)■ নারী হচ্ছে বিপর্যয়করগ্রন্থের নামঃ সুনানে ইবনে মাজাহ হাদিস নম্বরঃ [3998] অধ্যায়ঃ ৩০/ কলহ-বিপর্যয় (كتاب الفتن) পাবলিশারঃ তাওহীদ পাবলিকেশন পরিচ্ছদঃ ৩০/১৯. নারীদের সৃষ্ট বিপর্যয় ১/৩৯৯৮। উসামা ইবনে যায়েদ (রাঃ) থেকে বর্ণিত। তিনি বলেন, রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেনঃ আমি আমার পরে পুরুষদের জন্য নারীদের চেয়ে অধিক বিপর্যয়কর আর কিছু রেখে যাবো না। সহীহুল বুখারী ৫০৯৬, মুসলিম ২৮৪০, ২৮৪১, তিরমিযী ২৮৮০, আহমাদ ২১২৩৯, ২১৩২২, সহীহাহ ২৭০১। তাহকীক আলবানীঃ সহীহ। হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)■ নারী, গাধা এবং কালো কুকুরগ্রন্থের নামঃ বুলুগুল মারাম হাদিস নম্বরঃ [231] অধ্যায়ঃ পর্ব – ২ঃ সালাত পাবলিশারঃ তাওহীদ পাবলিকেশন পরিচ্ছদঃ ৪. সালাত আদায়কারী ব্যক্তির সুতরা বা আড় – সালাত বিনষ্টকারী বিষয়সমূহের বর্ণনা ২৩১. আবূ যার গিফারী (রাঃ) থেকে বর্ণিত। তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেনঃ সালাত আদায় করার সময় যদি উটের পালানের শেষাংশের কাঠির পরিমাণ একটা সুতরাহ দেয়া না হয় আর উক্ত মুসল্লীর সম্মুখ দিয়ে (প্রাপ্ত বয়স্কা) স্ত্রীলোক, গাধা ও কালো কুকুর অতিক্রম করলে সালাত (এর-একাগ্রতা) নষ্ট হয়ে যাবে। এটা একটা দীর্ঘ হাদীসের খণ্ডাংশ’। তাতে একস্থানে আছেঃ কাল কুকুর হচ্ছে শয়তান। হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)গ্রন্থের নামঃ সুনানে ইবনে মাজাহ হাদিস নম্বরঃ [952] অধ্যায়ঃ ৫/ সলাত কায়িম করা ও নিয়ম-কানুন পাবলিশারঃ তাওহীদ পাবলিকেশন পরিচ্ছদঃ ৫/৩৮. যা সলাত নষ্ট করে। ৬/৯৫২। আবূ যার (রাঃ) থেকে বর্ণিত। নাবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওযাসাল্লাম বলেন: সালাতীর সামনে শিবিকার খুঁটির ন্যায় কোন জিনিস না থাকলে নারী, গাধা ও কালো বর্ণের কুকুর তার সালাত নষ্ট করে। অধস্তন রাবী বলেন, আমি বললাম, লাল বর্ণের কুকুর থেকে কালো বর্ণের কুকুরের পার্থক্য কি? তিনি বলেন, তুমি আমাকে যেরূপ জিজ্ঞেস করলে আমিও রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম কে তদ্রূপ জিজ্ঞেস করেছিলাম। তিনি বলেনঃ কালো কুকুর হল শয়তান। তাখরীজ কুতুবুত সিত্তাহ: মুসলিম ৫১০, তিরমিযী ৩৩৮, নাসায়ী ৭৫০, আবূ দাঊদ ৭০২, আহমাদ ২০৮১৬, ২০৮৩৫, ২০৮৭০, ২০৯১৪, ২০৯২০; দারিমী ১৪১৪। তাহক্বীক্ব আলবানী: সহীহ। তাখরীজ আলবানী: সহীহ আবী দাউদ ৬৯৯। হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)গ্রন্থের নামঃ সূনান নাসাঈ (ইফাঃ) হাদিস নম্বরঃ [751] অধ্যায়ঃ ৯/ কিবলা পাবলিশারঃ ইসলামিক ফাউন্ডেশন পরিচ্ছদঃ ৭/ নামাযের সামনে সুতরাহ না থাকলে, যাতে নামায নষ্ট হয় আর যাতে নষ্ট হয় না।  ৭৫১। আমর ইবনু আলী (রহঃ) … আবূ যার (রাঃ) থেকে বর্ণিত। তিনি বলেন, রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেনঃ তোমাদের কেউ যখন সালাত আদায় করার জন্য দাঁড়ায়, তখন সে নিজেকে আড়াল করে নেবে যদি তার সামনে হাওদার হেলান কাঠের মত কিছু থাকে। যদি তার সামনে হাওদার হেলান কাঠের মত কিছু না থাকে, তাহলে তার সালাত নষ্ট করবে নারী- গাধা এবং কাল কুকুর। আমি বললাম, লাল ও হলুদে কুকুরের তুলনায় কালো কুকুরের অবস্থা কি?। তিনি বললেন, আমি রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম-কে প্রশ্ন করেছিলাম, যেমন তুমি আমাকে প্রশ্ন করেছ। তখন তিনি বললেনঃ কালো কুকুর শয়তান। সহিহ, ইবনু মাজাহ হাঃ ৯৫২, মুসলিম (ইসলামিক সেন্টার) হাঃ ১০২৯ হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)■ পুরুষের থেকে নারীর বুদ্ধি কম হয়গ্রন্থের নামঃ সহীহ মুসলিম (ইফাঃ) হাদিস নম্বরঃ [145] অধ্যায়ঃ ১/ কিতাবুল ঈমান (كتاب الإيمان) পাবলিশারঃ ইসলামিক ফাউন্ডেশন পরিচ্ছদঃ ৩৪. ইবাদতের ত্রুটিতে ঈমান হ্রাস পাওয়া এবং কুফর শব্দটি আল্লাহর সাথে কুফুরী ছাড়া নিয়ামত ও হুকুম অস্বীকার করার বেলায়ও প্রযোজ্য ১৪৫। মুহাম্মাদ ইবনু রুম্হ ইবনু মুহাজির আল মিসরি (রহঃ) … আবদুল্লাহ ইবনু উমর (রাঃ) থেকে বর্ণিত যে, রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ইরশাদ করেনঃ হে রমনীগন! তোমরা দান-খয়রাত করতে থাক এবং বেশি করে ইস্তিগফার কর। কেননা আমি দেখেছি যে, জাহান্নামের অধিবাসীদের অধিকাংশই নারী। জনৈকা বুদ্ধিমতী মহিলা প্রশ্ন করল, হে আল্লাহর রাসুল! জাহান্নামে আমাদের সংখ্যাগরিষ্ঠতার কারণ কি? বললেন, তোমরা বেশি বেশি অভিসম্পাত করে থাকো এবং স্বামীর প্রতি (অকৃতজ্ঞতা) প্রকাশ করে থাকো। আর দ্বীন ও জ্ঞান-বুদ্ধিতে ক্রটিপূর্ণ কোন সম্প্রদায়, জ্ঞানীদের উপর তোমাদের চেয়ে প্রভাব বিস্তারকারী আর কাউকে আমি দেখিনি। প্রশ্নকারিনী জিজ্ঞেস করল, হে আল্লাহর রাসুল! জ্ঞান-বুদ্ধি ও দ্বীনে আমাদের কমতি কিসে? তিনি বললেনঃ তোমাদের জ্ঞান-বুদ্ধির ক্রটি হলো দু-জন স্ত্রীলোকের সাক্ষ্য একজন পুরুষের সাক্ষ্যের সমান; এটাই তোমাদের বুদ্ধির ক্রটির প্রমাণ। স্ত্রীলোক (প্রতিমাসে) কয়েকদিন সালাত (নামায/নামাজ) থেকে বিরত থাকে আর রমযান মাসে রোযা ভঙ্গ করে; (ঋতুমতী হওয়ার কারণে) এটাই দ্বীনের ক্রটি। হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)গ্রন্থের নামঃ সহীহ বুখারী (তাওহীদ) হাদিস নম্বরঃ [1462] অধ্যায়ঃ ২৪/ যাকাত পাবলিশারঃ তাওহীদ পাবলিকেশন পরিচ্ছদঃ ২৪/৪৪. নিকটাত্মীয়দেরকে যাকাত দেয়া। ১৪৬২. আবূ সা‘ঈদ খুদরী (রাঃ) হতে বর্ণিত। তিনি বলেন, এক ঈদুল আযহা বা ঈদুল ফিত্রের দিনে আল্লাহর রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ঈদগাহে গেলেন এবং সালাত শেষ করলেন। পরে লোকদের উপদেশ দিলেন এবং তাদের সদাকাহ দেয়ার নির্দেশ দিলেন আর বললেনঃ লোক সকল! তোমরা সদাকাহ দিবে। অতঃপর মহিলাগণের নিকট গিয়ে বললেনঃ মহিলাগণ! তোমরা সদাকাহ দাও। আমাকে জাহান্নামে তোমাদেরকে অধিক সংখ্যক দেখানো হয়েছে। তারা বললেন, হে আল্লাহর রাসূল! এর কারণ কী? তিনি বললেনঃ তোমরা বেশি অভিশাপ দিয়ে থাক এবং স্বামীর অকৃতজ্ঞ হয়ে থাক। হে মহিলাগণ! জ্ঞান ও দ্বীনে অপরিপূর্ণ হওয়া সত্ত্বেও দৃঢ়চেতা পুরুষের বুদ্ধি হরণকারিণী তোমাদের মত কাউকে দেখিনি। যখন তিনি ফিরে এসে ঘরে পৌঁছলেন, তখন ইবনু মাস‘ঊদ (রাঃ)-এর স্ত্রী যায়নাব (রাযি.) তাঁর কাছে প্রবেশের অনুমতি চাইলেন। বলা হলো, হে আল্লাহর রাসূল! যায়নাব এসেছেন। তিনি বললেন, কোন্ যায়নাব? বলা হলো, ইবনু মাস‘ঊদের স্ত্রী। তিনি বললেনঃ হাঁ, তাকে আসতে দাও। তাকে অনুমতি দেয়া হলো। তিনি বললেন, হে আল্লাহর নাবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম আজ আপনি সদাকাহ করার নির্দেশ দিয়েছেন। আমার অলংকার আছে। আমি তা সদাকাহ করার ইচ্ছা করেছি। ইবনু মাস‘ঊদ (রাঃ) মনে করেন, আমার এ সদাকায় তাঁর এবং তাঁর সন্তানদেরই হক বেশি। তখন আল্লাহর রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বললেন, ইবনু মাস‘ঊদ (রাঃ) ঠিক বলেছে। তোমার স্বামী ও সন্তানই তোমার এ সদাকাহর অধিক হাক্দার। (৩০৪, মুসলিম ১২/২, হাঃ ৯৮২, আহমাদ ৭২৯৯) (আধুনিক প্রকাশনীঃ ১৩৬৮, ইসলামিক ফাউন্ডেশনঃ ১৩৭৪) হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)■ নারীরা অধিক জাহান্নামীগ্রন্থের নামঃ সহীহ বুখারী (ইফাঃ) হাদিস নম্বরঃ [28] অধ্যায়ঃ ২/ ঈমান পাবলিশারঃ ইসলামিক ফাউন্ডেশন পরিচ্ছদঃ ২১/ স্বামীর প্রতি অকৃতজ্ঞতা  ২৮। আবদুল্লাহ ইবনু মাসলামা (রহঃ) ইবনু ‘আব্বাস (রাঃ) থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ইরশাদ করেনঃ আমাকে জাহান্নাম দেখানো হয়। (আমি দেখি), তার অধিবাসীদের অধিকাংশই স্ত্রীলোক; (কারন) তারা কুফরী করে। জিজ্ঞাসা করা হল, ‘তারা কি আল্লাহর সঙ্গে কুফরী করে?’ তিনি বললেনঃ ‘তারা স্বামীর অবাধ্য হয় এবং ইহসান অস্বীকার করে। ’ তুমি যদি দীর্ঘকাল তাদের কারো প্রতি ইহসান করতে থাক, এরপর সে তোমার সামান্য অবহেলা দেখলেই বলে, ‘আমি কখনো তোমার কাছ থেকে ভালো ব্যবহার পাইনি। ’ হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)■ পুরুষরা নারীর থেকে শ্রেষ্ঠপুরুষ নারীর থেকে সর্বদাই শ্রেষ্ঠ। শিক্ষায়, মেধায়, জ্ঞানে নারী যত কিছুই করুক না কেন, পুরষই শ্রেষ্ঠ। প্রাইমারী স্কুল ফেল পুরুষও পিএইচডি করা নারীর চাইতে শ্রেষ্ঠ, এটা কোরআনের ঘোষণা।আর নারীদের ওপর পুরুষদের শ্রেষ্ঠত্ব রয়েছে। সুরা আল বাকারা আয়াত ২২৮■ সম্পত্তিতে নারী পাবে অর্ধেকআল্লাহ তোমাদেরকে তোমাদের সন্তানদের সম্পর্কে আদেশ করেনঃ একজন পুরুষের অংশ দু’জন নারীর অংশের সমানসুরা নিসা আয়াত ১১■ তিনজন ছাড়া সকল নারী অপূর্ণাঙ্গগ্রন্থের নামঃ সহীহ বুখারী (তাওহীদ) হাদিস নম্বরঃ [3433] অধ্যায়ঃ ৬০/ আম্বিয়া কিরাম (‘আঃ) (كتاب أحاديث الأنبياء) পাবলিশারঃ তাওহীদ পাবলিকেশন পরিচ্ছদঃ ৬০/৪৬. মহান আল্লাহর বাণীঃ ৩৪৩৩. আবূ মূসা আল-আশ‘আরী (রাঃ) হতে বর্ণিত। তিনি বলেন, নাবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন, সকল নারীর উপর ‘আয়িশাহর মর্যাদা এমন, যেমন সকল খাদ্যের উপর সারীদের মর্যাদা। পুরুষদের মধ্যে অনেকেই পূর্ণাঙ্গতা অর্জন করেছেন। কিন্তু নারীদের মধ্যে ইমরানের কন্যা মারইয়াম এবং ফির‘আউনের স্ত্রী আছিয়া ছাড়া কেউ পূর্ণাঙ্গতা অর্জন করতে পারেনি। (৩৪১১) (আধুনিক প্রকাশনীঃ ৩১৮০ প্রথমাংশ, ইসলামিক ফাউন্ডেশনঃ ৩১৮৯ প্রথমাংশ) হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih) ■ নারীর সাক্ষ্য পুরুষের অর্ধেকআইন আদালতে নারীর সাক্ষ্য পুরুষের সাক্ষ্যর অর্ধেক। দুইজন নারী=একজন পুরুষ। তা সে যত নির্বোধ পুরুষই হোক না কেন। একমাত্র পুরুষ হওয়াটাই তার দুইজন নারীর সমকক্ষ হবার যোগ্যতা!দুজন সাক্ষী কর, তোমাদের পুরুষদের মধ্যে থেকে। যদি দুজন পুরুষ না হয়, তবে একজন পুরুষ ও দুজন মহিলা। সুরা আল বাকারা আয়াত ২৮২■ নারীদের গৃহাভ্যন্তরে অবস্থান করতে হবেতোমরা গৃহাভ্যন্তরে অবস্থান করবে-মূর্খতা যুগের অনুরূপ নিজেদেরকে প্রদর্শন করবে না। সুরা আহজাব আয়াত ৩৩■ নারীদের রাস্তার মাঝ দিয়ে চলা যাবে নাপাবলিশারঃ ইসলামিক ফাউন্ডেশন গ্রন্থঃ সূনান আবু দাউদ (ইফাঃ) অধ্যায়ঃ ৩৮/ সালাম হাদিস নাম্বার: 5182 ৫১৮২. আবদুল্লাহ ইবন মাসলামা (রহঃ) ………. আবূ উসায়দ আনসারী (রাঃ) তাঁর পিতা থেকে বর্ণনা করেছেন। তিনি রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম কে বর্ণনা কবতে শুনেছেন; যখন তিন মসজিদ থেকে বেরিয়ে দেখতে পান যে, পুরুষেরা রাস্তার মাঝে মহিলাদের সাথে মিশে যাচ্ছে। তখন রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম মহিলাদের বলেনঃ তোমরা অপেক্ষা কর! তোমাদের রাস্তার মাঝখান দিয়ে চলাচল করা উচিত নয়, বরং তোমরা রাস্তার এক পাশ দিয়ে যাবে। এরপর মহিলারা দেয়াল ঘেষে চলাচল করার ফলে অধিকাংশ সময় তাদের কাপড় দেয়ালের সাথে আটকে যেত। হাদিসের মানঃ হাসান (Hasan)■ অপ্রাপ্তবয়ষ্ক মেয়েকে বিয়ে দেয়াবয়ষ্ক পুরুষ অপ্রাপ্তবয়সী কন্যাকেও বিয়ে করতে পারবে। যেমন মুহাম্মদ করেছিলেন ৫৩ বছর বয়সে ৬ বছরের আয়শাকে বিয়ে।

তোমাদের যে সব স্ত্রী আর ঋতুবতী হওয়ার আশা নেই। তাদের ইদ্দত সম্পর্কে তোমরা সন্দেহ করলে তাদের ইদ্দতকাল হবে তিন মাস এবং যারা এখনো ঋতুর বয়সে পৌঁছেনি তাদেরও; আর গর্ভবতী নারীদের ইদ্দতকাল সন্তান প্রসব পর্যন্ত। আর যে আল্লাহর তাকওয়া অবলম্বন করে আল্লাহ্ তার জন্য তার কাজকে সহজ করে দেন।

30 comments
Enjoy
Free
E-Books
on
Just Another Bangladeshi
By
Famous Writers, Scientists, and Philosophers 
Our Social Media
  • Facebook
  • Twitter
  • Pinterest
Our Partners

© 2023 by The Just Another Bangladeshi. Proudly created by Sen