জাস্ট বি ইউরসেলফ

বাস্তবজীবনে মেয়েদের মতো ছেলেরাও এত সুন্দর চকচকে হয়না। পেট ভর্তি ভুঁড়ি, লিকলিকে চেহারা, গালভর্তি দাঁড়ি, ব্রণ, চোখের তলা কুঁচকে যাওয়া, হলদেটে দাঁত, কালো ঠোঁট, গায়ে ঘামের গন্ধ থাকে বেশিরভাগেরই।


এবং এদের মধ্যে অনেকেই জাস্ট ডোন্ট কেয়ার এটিটিউড নিয়ে ঘোরাফেরা করে, কে কি ভাবছে না ভাবছে কে কি বললো না বললো সে সব নিয়ে বিন্দুমাত্র চিন্তা নেই তাদের ভেতর।

তারা যেরকম চাকচিক্যহীন দেখতে, সেভাবেই নিজেকে সবার সামনে তুলে ধরে, কারণ তারা নিজেকে ভালোবাসে, এবং তারা বিশ্বাস করে তাদেরকে যারা ভালোবাসবে, যেমনই দেখতে হোক না কেন, ঠিক একইভাবে তারাও তাদের গ্রহণ করবে।

কাউকে ইমপ্রেশ করার জন্য তারা নিজেকে গোছায়না, সাজায়না। সত্যি বলতে কি আমি মনে করি, মানুষ কখনো উপভোগের বস্তু হতে পারেনা। যে নিজেকে উপভোগ্য বস্তু হিসেবে সমাজের সামনে তুলে ধরবে, তার কিন্তু বিশাল চাপ, বিরাট দায়!

তাকে গোটাজীবন অন্যকে আনন্দ দিয়ে যেতে হবে, যখনই সে আনন্দ দিতে সক্ষম হবেনা বয়সের ভারে হোক বা পরিস্থিতির ভারে তখনই তাকে এই সমাজ ছুঁড়ে ফেলে দেবে ডাস্টবিনে।

এটাই সমাজের নিয়ম, এই নিয়মের উর্দ্ধে না আমি না আপনি! যাই হোক আমি মনে করি যেমন মুখোশ পরা উচিত মানুষ বুঝে, তেমনই টুকটাক মেকআপ করাটাও দরকার অনুষ্ঠান আনন্দ উৎসব বুঝে।

আমি কখনোই বলিনি মেকআপ করা খারাপ! আমি নিজেও মেকআপ করি মাঝেমধ্যেই, বিয়েবাড়ি হোক বা ঈদ, বা কোথাও ঘুরতে গেলে, হালকা করে কাজল পরি, লিপস্টিক মাখি, পাউডার দিই মুখে।

কিন্তু বছরের বেশিরভাগ সময় নিজেকে আমি অগোছালো রাখি, অর্থাৎ আমি যেমন তেমনই থাকার চেষ্টা করি। আমি যেমন ঘরে থাকি, তেমনই বাইরেও থাকার চেষ্টা করি, নিজের চোখের তলার কালি লুকাইনা খুব কাছের মানুষের কাছে, বিশেষ করে যারা মায়ের মতো আগলে রাখে তাদের কাছে একেবারেই না।

কারণ আজ না হয় আমি তাকে আকর্ষিত করার জন্য হোক বা নিজের ইম্প্রেশন তার উপর ফেলার জন্যই হোক যদি মেকআপ করে গালের ব্রণ চুলের সাদা অংশ ঢেকে যেতে হয় তার কাছে।

তাহলে কাল বয়স বাড়লে বা শারীরিক কোনো রোগ হলে আর কোন উপায়ে তাকে আকর্ষিত করবো! কাজেই কাছের মানুষদের কাছে চাকচিক্যহীন থাকাই শ্রেয়।

যাতে তারা বাস্তবটা দেখতে পায় প্রতিদিন আমাদের মুখে শরীরে পেটের চর্বিতে, ক্যাটরিনা কাইফ,শাহরুখ খান,রণবীর কাপুর আর যাই হোক কল্পনায় ভালো লাগে। বাস্তবে আমাদের সেই ছেঁড়াফাটা মানুষটার কাছেই ফিরতে হয়, যাদের কোলে আশ্রয় পাওয়া যায়, ছায়া পাওয়া যায়।

তাছাড়া যে মানুষগুলো আমাদের খুব সাধারণ ভাবে মেনেই নিতে পারবে না, সে কাল গিয়ে আমাদের দায়িত্ব নেবে বলে মনে হয়?

আমরা অনেকেই সাদামাটা থাকতে পারিনা, আমি নিজেও পারিনা হয়তো! চুল সাদা হলে রঙ করতে হবে, গালে ব্রণ উঠলে ক্রিম ঘষতে হবে, কারণ আমাদের বাইরের দুনিয়ার কাছে সুন্দর থাকতে হবে।

আর ঠিক এইসবের মধ্যেই যে ছেলে মেয়ে গুলো মেকআপ না করে মুখোশ খুলে কোনোরকম রং না মেখে ঘুরে বেড়াচ্ছে আমাদের চারিদিকে, আমাদের চোখে আঙ্গুল দিয়ে জানিয়ে দিচ্ছে,

"জাস্ট বি ইউরসেলফ" নিজের আয়নাকে ঘেন্না করো না বরং তার মুখোমুখি হও, ভালোবাসো, চুমু খাও, নিজেকে ভালোবাসো তাদেরকে আলাদা করে সম্মান জানাতেই হয়, তাইনা!

Enjoy
Free
E-Books
on
Just Another Bangladeshi
By
Famous Writers, Scientists, and Philosophers 
Our Social Media
  • Facebook
  • Twitter
  • Pinterest
Our Partners

© 2023 by The Just Another Bangladeshi. Proudly created by Sen